উচ্চতা বাড়ানোর সহজলভ্য ৬ সবজি

অনেকেই লম্বা হওয়ার বা উচ্চতা বাড়ানোর চেষ্টা করেন। তবে বিষয়টা সম্পূর্ণ নির্ভর করে বংশগত বৈশিষ্ট্যের ওপর। একটা নির্দিষ্ট বয়স পর্যন্ত মানবদেহের বৃদ্ধি ঘটে, উচ্চতা বাড়ে। তবে উচ্চতা ঠিকমতো বৃদ্ধি পাওয়ার ক্ষেত্রে সঠিক খাওয়াদাওয়ার ভূমিকা রয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলেন, সুস্থ ও সক্রিয় জীবন যাপন করলে উচ্চতা বাড়ানো সম্ভব। শরীরচর্চা ও স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস উচ্চতা বাড়ানোর ক্ষেত্রে সহায়ক ভূমিকা পালন করে। নির্দিষ্ট বয়সের পর শারীরিকভাবে বেড়ে ওঠা বন্ধ হয়ে যায়।

শিম
শিমে আছে প্রচুর ভিটামিন ও প্রোটিন, যা আপনার উচ্চতা বাড়াতে প্রধান ভূমিকা পালন করে। শিমে থাকা খনিজ উপাদান টিস্যু ও মাংসপেশি গঠনে কাজ করে; যা স্বাভাবিকভাবেই উচ্চতা বাড়ায়।

ঢ্যাঁড়স
উচ্চতা বৃদ্ধিতে সহায়ক যেসব সবজি রয়েছে, এর মধ্যে ঢ্যাঁড়স অন্যতম। ঢ্যাঁড়সে আছে ভিটামিন, মিনারেল, কার্বোহাইড্রেট, পানি ও আঁশ, যা গ্রোথ হরমোনের কার্যক্ষমতা বাড়িয়ে উচ্চতা বাড়াতে সহায়তা করে।

শালগম
শালগম অনেকেরই পছন্দের সবজি। এই শালগমই আপনাকে উচ্চতা বৃদ্ধি করতে সাহায্য করবে। শালগমে আছে ভিটামিন, মিনারেল, ফাইবার, প্রোটিন ও ফ্যাট। এই উপাদানগুলো উচ্চতা বৃদ্ধিতে সহায়ক।

বাঁধাকপি
বাঁধাকপিতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, মিনারেল, আয়রন, প্রোটিন ও ফাইবার আছে; যা উচ্চতা বৃদ্ধি করার পাশাপাশি ক্যানসার প্রতিরোধ করে থাকে।

পালংশাক
পালংশাকে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, ফাইবার ও মিনারেল। আর এই উপাদানগুলো উচ্চতা বৃদ্ধি করে থাকে। নিয়মিত পালংশাক খেলে অল্প কিছু দিনের মধ্যে উচ্চতা বৃদ্ধি পাবে।

ব্রোকলি
উচ্চতা বৃদ্ধিতে সবুজ রঙের এই সবজিটির গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। সামান্য তেতো স্বাদের কারণে অনেকে ব্রোকলি পছন্দ করেন না। কিন্তু এতে রয়েছে ভিটামিন সি, ফাইবার, আয়রন, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, যা উচ্চতা বাড়াতে সহায়তা করে। তথ্যসূত্র: জিনিউজ।